নারীর ক্ষমতায়ন : ২০৩০ এর মধ্যে বদলে যাবে সৌদি

প্রতিরক্ষা বাহিনীসহ সরকারি বেসরকারি বিভিন্ন কর্মস্থলে অংশগ্রহণের সুযোগ দিয়ে পুরানো প্রথা ভেঙ্গে দিতে যাচ্ছে সৌদি আরব। সৌদি যুবরাজ মোহাম্মদ বিন সালমান এসব আধুনিকায়নের পেছনে মূল চালিকাশক্তি হিসেবে কাজ করছেন। নারীরর ক্ষমতায়নের মাধ্যমে তিনি ২০৩০ সালের মধ্যে দেশকে ‘বদলে দেবার’ কর্মসূচি হাতে নিয়েছেন।

সৌদি আরবে এই প্রথমবারের মতো মেয়েদের সামরিক বাহিনীতে যোগ দেবার জন্য আবেদনপত্র ছাড়া হয়েছে। সম্প্রতি সৌদি আরবের সমাজে যে সব বড় পরিবর্তনের সূচনা হয়েছে। এ ঘোষণা হচ্ছে তার মধ্যে সর্বশেষ।

দেশটির কিছু প্রদেশে সৈনিকের পদে সৌদি মেয়েদের জন্য আবেদন করার সুযোগ দিয়েছে দেশটির স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়। এ মাসের শেষ নাগাদ পর্যন্ত আবেদনপত্র গৃহীত হবে।

সৌদি গণমাধ্যম সূত্রে জানা গেছে, তাদের নারী সৈনিকদের সরাসরি যুদ্ধে অংশ নিতে হবেনা। তারা কাজ করবেন নিরাপত্তা বিভাগে। এসব পদে আবেদন করার জন্য ১২টি যোগ্যতার কথা উল্লেখ করা হয়েছে। তবে এক্ষেত্রে বয়সসীমা অবশ্যই ২৫ থেকে ৩৫ এর মধ্যে হতে হবে, এবং তার কমপক্ষে হাই স্কুল পর্যন্ত শিক্ষাগত যোগ্যতা থাকতে হবে।

সৌদি প্রশাসন বলছে, সৌদি নারীদের ঘরের বাইরে কালো আররণ পরতেই হবে এমন কোনো বাধ্যবাধকতা আর থাকছে না। সংযত পোশাক পরলেই হবে।

আজকের বাজার : এমআর/আরএম/২৭ ফেব্রুয়ারি ২০১৮